শনিবার  ০৪ ফেব্রুয়ারি ২০২৩,   মাঘ ২১ ১৪২৯,  ১৩ রজব ১৪৪৪

Gazipur Kotha | গাজীপুর কথা

পূবাইলে ড্রাগ লাইসেন্স ছাড়াই চলছে বেশিরভাগ ওষুধের দোকান

প্রকাশিত: ২০:৪১, ২৩ জানুয়ারি ২০২৩

পূবাইলে ড্রাগ লাইসেন্স ছাড়াই চলছে বেশিরভাগ ওষুধের দোকান

ওষুধের ফার্মেসি

গাজীপুর মহানগরীর পূবাইল থানা ও টঙ্গীতে হাটবাজার ও অলি গলিতে ওষুধের ফার্মেসি রয়েছে হাজার হাজার। এর মধ্যে ওষুধ প্রশাসন অধিদপ্তর থেকে কিছু সংখ্যক ড্রাগ লাইসেন্স নিয়েছে। বিপুল পরিমাণ ফার্মেসি ওষুধ প্রশাসনের নজরদারির বাহিরে রয়েছে।

সরজমিনে ঘুরে দেখা যায়, টঙ্গীর মরকুর, পাগার, আউচপাড়া, স্টেশন রোড, চেরাগ আলী, সাতাইশ অপরদিকে পূবাইলের মাজুখান, মেঘডুবী, কলের বাজার, হায়দরাবাদ, পূবাইল বাজার, কলেজ গেইট, মিরের বাজার, করমতলা এলাকায় ফার্মাসিস্ট ও ড্রাগ লাইসেন্স ছাড়াই অহরহ ওষুধ বিক্রি করে যাচ্ছে। অধিকাংশ ফার্মেসিতে ফার্মাসিস্ট না থাকায় অল্প শিক্ষিত লোক দিয়ে চলছে ব্যবসা। অনেক সময় চিকিৎসকের ব্যবস্থাপত্র না বুঝে ভুল ঔষুধ সরবরাহ করা হচ্ছে রোগীদের।

এসব এলাকার ফার্মেসির মূল গ্রাহক হচ্ছেন নিম্ন আয়ের মানুষ। ওষুধ বিক্রির পাশাপাশি ছোটো খাটো অস্ত্রপচারও করেন তারা। মনগরা নিজের ইচ্ছামতো ওষুধ দিচ্ছেন রোগীদের। এতে করে ক্ষতির সম্মুখীন হচ্ছেন নিম্ন আয়ের সাধারণ রোগীরা। আরো খবর নিয়ে দেখা যায় যে, মুদি দোকানগুলোতে জ্বর, ব্যথা, সেক্সুয়াল, নিম্ন মানের ওষুধ বিক্রি করছে দোকানিরা। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক বৈধ ব্যবসায়ী বলেন, ওষুধ প্রশাসন যদি নিয়মিত এগুলো তদারকি করেন তাহলে মারাত্মক স্বাস্থ্য ঝুঁকি থেকে রেহাই পেতে পারেন টঙ্গী ও পূবাইলবাসী।

এ ব্যাপারে গাজীপুর ওষুধ প্রশাসন অধিদপ্তরের তত্ত্বাবধায়ক আহসান হাবিব জানান, আমরা নিয়মিত তদারকি করার চেষ্টা করছি। জরুরি ভিত্তিতে ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করে অনুমোদনহীন ফার্মেসিগুলোর বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

সূত্র: ঢাকা টাইমস