শনিবার  ০৪ ফেব্রুয়ারি ২০২৩,   মাঘ ২১ ১৪২৯,  ১৩ রজব ১৪৪৪

Gazipur Kotha | গাজীপুর কথা

শেষ মিনিটের দুই গোলে ইরানের অবিশ্বাস্য জয়

প্রকাশিত: ১৯:০৫, ২৫ নভেম্বর ২০২২

শেষ মিনিটের দুই গোলে ইরানের অবিশ্বাস্য জয়

শেষ মিনিটের দুই গোলে ইরানের অবিশ্বাস্য জয়

একবার বল জালে জড়ালো ঠিকই, তবে সেটা হলো অফসাইড। এরপর আরো দুইবার বল লাগলো বারপোস্টে। প্রতিবারই ফিরে আসল বল। ফিরতি সুযোগ কাজে লাগাতে পারলেন না সর্দার আজমাউন।

শেষদিকে ড্র নিয়েই মাঠ ছাড়ার প্রস্তুতি নিচ্ছিল ইরান ও ওয়েলস। তখনই গোল করে হিসাব পাল্টে দেন ইরানের রুসবেহ সেজমি। বাকি থাকা কয়েক সেকেন্ডের মাঝে স্কোর করেন রামিন রিজাইয়ান।

যার ফলে ফিফা বিশ্বকাপে বি গ্রুপে নিজেদের দ্বিতীয় ম্যাচে কাতারের আহমাদ বিন আলি স্টেডিয়ামে ওয়েলসকে ২-০ ব্যবধানে হারিয়েছে ইরান।

পুরো ম্যাচের ৪৮ শতাংশ সময় বল নিজেদের কাছে রেখেছিল ওয়েলস। এ সময় তারা গোলের জন্য ১০ বার চেষ্টা চালায়, যার মাঝে অন টার্গেট ছিল চারটি। বিপরীতে ৩২ শতাংশ সময় বলের দখলে রেখে ২১টি শট নেন ইরানের খেলোয়াড়রা। ছয়টি অন টার্গেট শটের শেষ দুটি থেকে গোলের দেখা পায় তারা।

ম্যাচে আক্রমণের দিক থেকে আধিপত্য বিস্তার করেছে ইরানই। শেষদিকে ১০জন নিয়ে খেলেছে ওয়েলস। তবুও ফিনিশিংয়ের ব্যর্থতায় গ্যারেথ বেলের দলের সঙ্গে পয়েন্ট ভাগাভাগির শঙ্কায় ছিলেন মেহেদি তারেমিরা।

ম্যাচের ১৬ মিনিটেই গোল করেছিলেন ইরানের আলি ঘোলিজাদেহ। দুর্দান্ত বিল্ড আপ থেকে দলীয় নৈপুণ্যে এই গোলটি হলেও ভিএআরে চেক করে সেটি বাতিল ঘোষণা করেন রেফারি। 

এরপর প্রথমার্ধে দুই দলই সমানে সমান লড়াই করেছে। এ সময় ৫৪ শতাংশ সময় বলের দখল রেখেছিল ওয়েলস। অন্যদিকে ইরান বলের দখলে ছিল ৩০ শতাংশ সময়। এরপরও দুই দলই গোলের জন্য সমান চারটি করে শট নিয়েছে, যার মধ্যে লক্ষ্যে ছিল দুটি।

দ্বিতীয়ার্ধে যেন ভাগ্য একটু বেশিই হতাশ করে ইরানকে। এ সময় দুইবার বল বারপোস্টে লেগে ফিরে আসে। মাঝে একবার ফিরতি বলে হেড করেছিলেন সর্দার আজমাউন। কিন্তু সেটি সোজা চলে যায় গোলকিপারের হাতে।

ম্যাচের ৮৬ মিনিটে ঘটে আরেক ঘটনা। এ সময় আক্রমণে থাকা ইরানের এক খেলোয়াড়কে ডি বক্স থেকে অনেক বাইরে বেরিয়ে এসে অবৈধভাবে বাঁধা দেন ওয়েলস গোলরক্ষক ওয়েন হেনেসলি।

এ সময় প্রথমে রেফারি হলুদ কার্ড দিলেও ভিএআরের সাহায্য নিয়ে হেনেসলিকে লাল কার্ড দেখান। যা চলতি বিশ্বকাপের প্রথম লাল কার্ড। এরপর যেন নতুন অদ্যমে ঝাঁপিয়ে পড়ে ইরানের খেলোয়াড়রা।

ম্যাচে ৯ মিনিট অতিরিক্ত সময় দেওয়া হয়। ৯৮ মিনিট পূরণ হওয়ার মুহূর্তে দুর্দান্ত শটে গোল করেন সেজমি। এরপর ম্যাচ শেষ হওয়ার আগ মুহূর্তে ১০১তম মিনিটে ওয়েলসের কফিনে শেষ পেরেক ঠুকে দেন রামিন।

এই জয়ে দুই ম্যাচে ৩ পয়েন্ট নিয়ে বি গ্রুপের দ্বিতীয় স্থানে উঠে এসেছে ইরান। সমান ম্যাচে এক পয়েন্ট নিয়ে টেবিলের তলানিতে ওয়েলস। এক ম্যাচ কম খেলা যুক্তরাষ্ট্র ১ পয়েন্ট নিয়ে তিনে আছে। এক ম্যাচে তিন পয়েন্ট নিয়ে টেবিলের শীর্ষে ইংল্যান্ড।