শনিবার  ০৪ ফেব্রুয়ারি ২০২৩,   মাঘ ২১ ১৪২৯,  ১৩ রজব ১৪৪৪

Gazipur Kotha | গাজীপুর কথা

পিতামাতার খরচ চালানো কখন ওয়াজিব হয়ে যায়

প্রকাশিত: ২১:২৭, ৪ ডিসেম্বর ২০২২

পিতামাতার খরচ চালানো কখন ওয়াজিব হয়ে যায়

পিতামাতার খরচ চালানো কখন ওয়াজিব হয়ে যায়

পিতা-মাতা ও সন্তানসন্ততির মত নিকটাত্মীয়দের জন্য খরচ চালানোর দলিল হচ্ছে- কিতাব, সুন্নাহ ও ইজমা।

কিতাবের দলিল হল আল্লাহ্‌র বাণী-

وَعَلَى الْمَوْلُودِ لَهُ رِزْقُهُنَّ وَكِسْوَتُهُنَّ بِالْمَعْرُوفِ

অর্থ: পিতার কর্তব্য যথাবিধি তাদের (মাতাদের) ভরণ-পোষণ করা। [সূরা বাক্বারা, আয়াত: ২৩৩]

এবং তার বাণী-

وَقَضَى رَبُّكَ أَلَّا تَعْبُدُوا إِلَّا إِيَّاهُ وَبِالْوَالِدَيْنِ إِحْسَانًا  

অর্থ: আর আপনার রব আদেশ দিয়েছেন তিনি ছাড়া অন্য কারো ইবাদাত না করতে ও পিতা-মাতার প্রতি সদ্ব্যবহার করতে। [সূরা বনী ইসরাঈল, আয়াত:২৩] তাদের প্রতি সদ্ব্যবহার হলো তাদের প্রয়োজনের সময় তাদের জন্য ব্যয় করা।

ইজমা: ইবনুল মুনযির বলেন, আলেমগণ এই মর্মে একমত যে, দরিদ্র পিতামাতা যাদের কোনো উপার্জন নেই, সম্পদও নেই; তাদের ভরণপোষণ সন্তানের সম্পদে ওয়াজিব।

ভরণপোষণ ওয়াজিব হওয়ার ক্ষেত্রে শর্ত হলো- খরচদাতা স্বচ্ছল হওয়া, খরচগ্রহীতারা অস্বচ্ছল হওয়া এবং তাদের ভরণপোষণের প্রয়োজন থাকা। এটি মোটের উপর আলেমদের মাঝে মতৈক্যপূর্ণ বিষয়।