বুধবার  ০৫ অক্টোবর ২০২২,   আশ্বিন ১৯ ১৪২৯,  ০৯ রবিউল আউয়াল ১৪৪৪

Gazipur Kotha | গাজীপুর কথা

কাপাসিয়ায় ভাবীকে ধর্ষণ চেষ্টায় দেবরের নামে মামলা

প্রকাশিত: ১১:০৬, ২২ সেপ্টেম্বর ২০২২

কাপাসিয়ায় ভাবীকে ধর্ষণ চেষ্টায় দেবরের নামে মামলা

ফাইল ফটো

টয়লেটে যাওয়ার সময় গভীর রাতে ওঁৎ পেতে থেকে এক গৃহবধুকে শ্লীলতাহানী ও ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগে অভিযুক্ত দেবরের বিরুদ্ধে গাজীপুর আদালতে মামলা হয়েছে।

গত ১৯ সেপ্টেম্বর গাজীপুরের নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালে ভুক্তভোগী নারী বাদী হয়ে তার দেবরের বিরুদ্ধে মামলার আবেদন করেন।
পরে ট্রাইব্যুনালের বিচারক বেগম শামীমা আফরোজ অভিযোগটি আমলে নিয়ে পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশনকে (পিবিআই) তদন্তের নির্দেশ দিলে গতকাল বুধবার বিষয়টি প্রকাশ্যে আসে।অভিযুক্ত মো. মামুন শেখ (২৪) কাপাসিয়ার দূর্গাপুর ইউনিয়নের পলাশপুর এলাকার মৃত আবুল হোসেন শেখের ছেলে।

অভিযোগে মামলার বাদী উল্লেখ করেন, গত ১৭ সেপ্টেম্বর রাত ১০টার দিকে তিনি প্রস্রাব করতে ঘর থেকে বের হন। বাড়ি থেকে খানিকটা দূরে টয়লেটের কাছাকাছি যাওয়ামাত্র পূর্বে থেকে ওঁৎ পেতে থাকা মামুন তাকে ঝাপটে ধরে শরীরের স্পর্শকাতর স্থানে হাত দেয়। এরপর মুখ চেপে ধরে টয়লেটের পাশ্ববর্তী কলা বাগানে নিয়ে তাকে ধর্ষণের চেষ্টাকালে ডাকচিৎকারে তার স্বামীসহ কয়েকজন এগিয়ে আসে। এসময় অভিযুক্ত মামুন বিষয়টি প্রকাশ ও এ ঘটনায় মামলা করলে ভুক্তভোগী নারী ও তার পরিবারকে খুনের হুমকি দিয়ে চলে যায়।

বাদী অভিযোগে আরও উল্লেখ করেন, অভিযুক্ত মামুন তার দেবর। প্রায়ই ঘরে আসা-যাওয়ার সুযোগে তাকে বিভিন্ন প্রলোভন দেখিয়ে নানা কু-প্রস্তাব দিত মামুন। এতে তিনি রাজি না হওয়ায় এবং বিষয়টি তিনি প্রকাশ করায় মামুন ক্ষিপ্ত হয়ে ওঁৎ পেতে তাকে ধর্ষণের চেষ্টা চালায়। পরে থানায় মামলা না নেওয়ায় তিনি আদালতের দ্বারস্থ হয়েছেন বলেও অভিযোগে উল্লেখ করেন।

মামলার আইনজীবী মো. সাইফুল ইসলাম মোল্লা ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, বিচারক নিরপেক্ষ তদন্ত শেষে আদালতে প্রতিবেদন দাখিলের নির্দেশ দিয়েছেন। প্রতিবেদন দাখিলের শেষ সময় আদেশে উল্লেখ না থাকায় বিষয়টি পরে বলা যাবে। তিনি ন্যায় বিচার প্রত্যাশা করে বলেন, মামলায় ঘটনার চারজন প্রত্যক্ষদর্শী স্বাক্ষী হয়েছেন।