বৃহস্পতিবার  ১১ আগস্ট ২০২২,   শ্রাবণ ২৬ ১৪২৯,  ১৩ মুহররম ১৪৪৪

Gazipur Kotha | গাজীপুর কথা

রক্তদানের যত স্বাস্থ্য উপকারিতা

প্রকাশিত: ২০:৫১, ১৫ জুন ২০২২

রক্তদানের যত স্বাস্থ্য উপকারিতা

রক্তদান

রক্তদান হল কোন প্রাপ্তবয়স্ক সুস্থ মানুষের স্বেচ্ছায় রক্ত দেবার প্রক্রিয়া। নানা অসুখ-বিসুখ কিংবা দুর্ঘটনাজনিত কারণে অনেকেরই রক্তের প্রয়োজন হয়। অনেক স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন আছে যারা পরীক্ষার মাধ্যমে মানুষের কাছ থেকে বিশুদ্ধ রক্ত সংগ্রহ করে যাদের প্রয়োজন তাদের দান করে।

অনেকেই ভেবে থাকেন, রক্তদান করলে বিভিন্ন শারীরিক সমস্যায় ভুগতে হবে। কিন্তু এই ধারণাটি একেবারেই ঠিক নয়! রক্তদানের অনেক উপকারিতা আছে , চলুন জেনে আসা যাক...

> নিয়মিত রক্তদান করার ফলে ওজন হ্রাস হয়। ক্যালিফোর্নিয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষকদের মতে, ৪৫০ মিলিলিটার রক্তদান করলে আপনার দেহের ৬৫০ ক্যালোরি হ্রাস হয়। তবে, আপনার ওজন হ্রাস করার উদ্দেশ্যে এটি করা একদমই উচিত নয়। যেকোনও প্রকার স্বাস্থ্য সম্পর্কিত সমস্যা এড়ানোর জন্য, রক্ত​​দেওয়ার আগে দয়া করে ডাক্তারের কাছে চেকআপ করান।

> রক্ত দানের মাধ্যমে, আপনি হিমোক্রোমাটোসিসের ঝুঁকি থেকে নিজেকে রক্ষা করতে পারেন। দেহে অতিরিক্ত লৌহের উপস্থিতিতে এই রোগ হয়। এই রোগে লৌহ বা আয়রন বিভিন্ন অঙ্গে জমা হতে থাকে, এমনকি হার্টেও। নিয়মিত রক্তদানের ফলে শরীরে আয়রনের অতিরিক্ত মাত্রা হ্রাস হয়, যা হিমোক্রোমাটোসিসে আক্রান্ত ব্যক্তিদের জন্য উপকারি হতে পারে।

> রক্তদানের ফলে শরীরে প্রয়োজনীয় পরিমাণ আয়রন বজায় রাখতে সহায়তা করে, যা হৃদরোগের ঝুঁকি হ্রাস করে। এছাড়াও, হার্ট অ্যাটাক, স্ট্রোক ইত্যাদির ঝুঁকি হ্রাস করে।

> দেহে থাকা আয়রনের অতিরিক্ত মাত্রা, ক্যান্সারের ঝুঁকির সাথে সরাসরি সম্পর্কিত। এইজন্য রক্তদানের মাধ্যমে আপনি শরীরে আয়রনের একটি স্বাস্থ্যকর মাত্রা বজায় রাখতে পারেন, যা ক্যান্সার হওয়ার ঝুঁকি কমায়। এছাড়া, লিভার সম্পর্কিত রোগের ঝুঁকিও হ্রাস পায়।

> রক্তদান করার মাধ্যমে আপনি মানসিক শান্তি পেতে পারেন। আপনার রক্তদান অনেক রোগীর জীবন বাঁচাতে পারে। তাই, প্রতিটি সুস্থ ব্যক্তির তিন মাস অন্তর রক্তদান করা উচিত।

সূত্র: বোল্ডস্কাই