ঢাকা,  শনিবার  ২০ জুলাই ২০২৪

Gazipur Kotha | গাজীপুর কথা

উচ্চশিক্ষার উৎকর্ষ অর্জনে অংশীজনদের কার্যকর ভূমিকা রাখার আহ্বান ইউজিসি’র

প্রকাশিত: ০০:৫৭, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২৩

উচ্চশিক্ষার উৎকর্ষ অর্জনে অংশীজনদের কার্যকর ভূমিকা রাখার আহ্বান ইউজিসি’র

ছবি: সংগৃহীত

দেশের উচ্চশিক্ষা ও গবেষণাখাতকে এগিয়ে নিয়ে যেতে অংশীজনদের বলিষ্ট ভূমিকা রাখার আহ্বান জানিয়েছেন বাংলাদেশ বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশনের (ইউজিসি) চেয়ারম্যান (অতিরিক্ত দায়িত্ব) প্রফেসর ড. মুহাম্মদ আলমগীর।

ইউজিসি’র ২০২৩-২০২৪ অর্থবছরের শুদ্ধাচার কৌশল কর্ম-পরিকল্পনা বাস্তবায়নের অংশ হিসেবে অংশীজনের সঙ্গে এক সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।

সোমবার ইউজিসিতে এ মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়। কমিশনের সচিব ড. ফেরদৌস জামান অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন। অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করেন ইউজিসির উপসচিব ও জাতীয় শুদ্ধাচার কৌশলের ফোকাল পয়েন্ট মো. আসাদুজ্জামান।

প্রফেসর আলমগীর বলেন, দেশের উচ্চশিক্ষার উৎকর্ষ অর্জনে ইউজিসি বিভিন্ন নীতি ও পরিকল্পনা গ্রহণ করেছে। ইউজিসি ও বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রতি আস্থা তৈরি এবং এসব প্রতিষ্ঠানসমূহকে কাঙ্ক্ষিত স্থানে নিয়ে যেতে অংশীজনদের গঠনমূলক পরামর্শ দেওয়ার জন্য তিনি আহ্বান জানান। 

ইউজিসি’র প্রশাসন বিভাগের দায়িত্বপ্রাপ্ত এ সদস্য আরো বলেন, বিশ্ববিদ্যালয়ে নতুন বিভাগ খোলার ক্ষেত্রে যৌক্তিকতা নিরুপণ করা প্রয়োজন। অপ্রয়োজনে বিভাগ খোলা থেকে বেরিয়ে আসতে এবং বিশ্ববিদ্যালয়ের অবকাঠামো সম্প্রসারণে ইউজিসি’র প্রয়োজনীয় পরামর্শ গ্রহণের পরামর্শ দিয়েছেন। 

‘কোন কোন বিশ্ববিদ্যালয় নতুন বিভাগ খোলার পর শিক্ষা কার্যক্রম পরিচালনা করছেন না। কোন বিভাগ খোলার জন্য প্রয়োজনীয় অবকাঠামো, ল্যাব সুবিধা ও জনবল আছে কিনা এসব বিষয় বিবেচনা করতে হবে। একই সঙ্গে বিভাগ খোলার জন্য প্রয়োজনীয় সমীক্ষা পরিচালনা করতে হবে,’ বলে তিনি জানান। 

ড. ফেরদৌস জামান বলেন, কমিশনের অর্জন অর্থপূর্ণ করতে অংশীজনদের কাছ থেকে যৌক্তিক পরামর্শ গ্রহণ করে থাকে। বঙ্গবন্ধুর উচ্চশিক্ষা ভাবনা বাস্তবায়নে অংশীজনদের পরামর্শ গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করবেন বলে তিনি বিশ্বাস করেন। তিনি আরো বলেন, গুণগত শিক্ষা ও গবেষণা নিশ্চিত করতে ইউজিসি’র প্রচেষ্টা অব্যহত থাকবে।  

সভায় ইউজিসি, বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক ও কর্মকর্তা, গণমাধ্যম প্রতিনিধি এবং উচ্চশিক্ষা সেবা গ্রহীতারা অংশগ্রহণ করেন।