• শুক্রবার   ২০ মে ২০২২ ||

  • জ্যৈষ্ঠ ৬ ১৪২৯

  • || ১৯ শাওয়াল ১৪৪৩

গাজীপুর কথা

কুয়াকাটা সৈকতে ভেসে এলো মৃত ইরাবতী ডলফিন

গাজীপুর কথা

প্রকাশিত: ২৪ জানুয়ারি ২০২২  

পটুয়াখালীর কুয়াকাটা সমুদ্রসৈকতে পাঁচ ফুট দৈর্ঘ্যের একটি মৃত ইরাবতী ডলফিন ভেসে এসেছে। রোববার সকালে সমুদ্রের জোয়ারে ডলফিনটি ভেসে এসে পশ্চিমের সৈকতের কম্পিউটার পয়েন্ট এলাকার বালুচরে আটকা পড়ে।

স্থানীয়রা জানায়, কুয়াকাটা সৈকতে বন্যপ্রাণী ও পরিবেশ সুরক্ষায় নিয়োজিত ব্লুগার্ড সদস্যরা প্রথমে মৃত ডলফিনটি দেখতে পান। প্রায় পাঁচ ফুট লম্বা ইরাবতী প্রজাতির ডলফিনটির একটি পাখনা কাটা ছিল। শরীরে ও ঠোঁটে একাধিক আঘাতের চিহ্ন ছিল। জেলেদের জালের আঘাতে ডলফিনটির মৃত্যু হয়েছে বলে ধারণা করা হচ্ছে। পরে বন কর্মকর্তারদের নির্দেশে ডলফিনটি মাটিচাপা দেওয়া হয়।

পটুয়খালী জেলা বন বিভাগের কর্মকর্তা আব্দুল্লাহ আল মামুন বলেন, ডলফিন মৃত্যুর ঘটনায় আমরা উদ্বিগ্ন। তবে সামুদ্রিক এ প্রাণী রক্ষায় পদক্ষেপ নেয়া হবে।

এ নিয়ে গত এক বছরে কুয়াকাটা সৈকতে ২২টি মৃত ডলফিন ভেসে এসেছে। এগুলোর মৃত্যুর কারণ অনুসন্ধানে কার্যকরী কোনো পদক্ষেপ নেননি মৎস্য বিভাগ ও গবেষকরা।

পরিবেশকর্মী ও ব্লুগার্ড সদস্য হাবিব আকন বলেন, ডলফিনটিকে সদ্য মেরে ফেলা হয়েছে। কারণ তার শরীর গরম ছিল ও জাল পেঁচানো ছিল।

তারা ধারণা করছেন, সাগরে মাছ শিকাররত জেলেদের জালে এটি আটকা পড়ে। এটিকে মেরে সাগরে ফেলে দেওয়া হয়। ভাসতে ভাসতে এটি সৈকতের বালুচরে আটকা পড়ে। এ সময় কুয়াকাটায় ভ্রমণে আসা পর্যটকরা ডলফিনটি দেখতে ভিড় করেন। পড়ে ব্লুগার্ড সদস্য ও পরিবেশ কর্মীরা মৃত ডলফিনটি উদ্ধার করে সৈকতে বালুচাপা দেয়।

পটুয়াখালী ইকোফিশ-২ প্রকল্পের সহযোগী গবেষক সাগরিকা স্মৃতি বলেন, এ সম্পদ রক্ষা করা না গেলে সামুদ্রিক পরিবেশে বিরূপ প্রতিক্রিয়া সৃষ্টি হবে। তাই এ সম্পদ রক্ষায় আইনের কঠোর প্রয়োগ নিশ্চিত হওয়া প্রয়োজন।

গাজীপুর কথা
গাজীপুর কথা