ব্রেকিং:
করোনা আপডেট বাংলাদেশ ২৭/১১/২০২০: করোনা আক্রান্ত হয়ে ২৪ ঘণ্টায় দেশে ২০ জনের মৃত্যু এ নিয়ে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ৬৫৪৪, নতুন ২২৭৩ জনসহ আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে ৪৫৮৭১১ জন। নতুন ২২২৩ জনসহ মোট সুস্থ ৩৭৩৬৭৬ জন। একদিনে ১৬৩৭৮টি সহ মোট নমুনা পরীক্ষা ২৭২৯৫৮০টি।
  • শুক্রবার   ২৭ নভেম্বর ২০২০ ||

  • অগ্রাহায়ণ ১৩ ১৪২৭

  • || ১২ রবিউস সানি ১৪৪২

সর্বশেষ:
সৌদি সহায়তায় ৮ বিভাগে ‘আইকনিক মসজিদ’ নির্মিত হবে: প্রধানমন্ত্রী বরেণ্য অভিনেতা আলী যাকেরের দাফন সম্পন্ন পদ্মা সেতুতে বসলো ৩৯তম স্প্যান, দৃশ্যমান সেতুর ৫ হাজার ৮৫০ মিটার বছরে প্রতি উপজেলা থেকে এক হাজার কর্মী যাবে বিদেশ ২ ডিসেম্বর মহাকাশে যাচ্ছে বাংলাদেশের ধনে বীজ গাজীপুরে জাল নোটসহ ২ জনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ
৬২

ভুট্টা উৎপাদনে শীর্ষ দেশগুলোর তালিকায় বাংলাদেশ

গাজীপুর কথা

প্রকাশিত: ১৮ নভেম্বর ২০২০  

খুব কম সময়ে সাফল্য এসেছে ভুট্টা চাষে। গেলো পাঁচ বছরে উৎপাদন বেড়ে দ্বিগুণ হয়েছে। বাংলাদেশ কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর ও যুক্তরাষ্ট্রের কৃষি বিভাগের প্রতিবেদন বলছে হেক্টর প্রতি ফলনেও বাংলাদেশ এখন বিশ্বের শীর্ষ দেশগুলোর কাতারে। কয়েক বছরের মধ্যেই ভুট্টা উৎপাদনেও দেশ সয়ংসম্পূর্ণ হবে বলে আশাবাদী কৃষিবিভাগ।
 
দিনে দিনে বাড়ছে ভুট্টার উৎপাদন। শীর্ষ ভুট্টা উৎপাদনকারী দেশগুলোর তালিকায় আছে বাংলাদেশের নামও। ২০১৫-১৬ অর্থবছরে দেশে ভুট্টার উৎপাদন ছিল মাত্র ২৭ লাখ টন। পাঁচ বছর পরে এসে উৎপাদন ৫৪ লাখ টন। 

মার্কিন কৃষি বিভাগের তথ্য বলছে, গেলো মৌসুমে ভুট্টা উৎপাদনে শীর্ষ দেশ তুরস্ক। প্রতি হেক্টরের ফলন সাড়ে ১১ টন। দ্বিতীয় স্থানে থাকা যুক্তরাষ্ট্রের হেক্টর প্রতি উৎপাদন ১০ টন। আর বাংলাদেশ পৌনে ১০ টন।

মোট উৎপাদনের ৮৭ শতাংশই হয় শীত মৌসুমে। এলাকা ভেদে ফলন ওঠে মার্চের মাঝামাঝি সময় থেকে জুনের শেষ পর্যন্ত। এর সিংহ ভাগই ব্যবহার হয় প্রাণী খাদ্য হিসেবে। বছরে বাজার বাড়ছে ১৫ শতাংশ হারে।

এদিকে মানুষের খাওয়ার উপযোগী মিষ্টি ভুট্টার চাহিদাও বাড়ছে। দেশে বর্তমানে সাড়ে পাঁচ লাখ হেক্টর জমিতে ভুট্টার আবাদ হচ্ছে। তবে ভুট্টা উৎপাদনের অর্ধেকই হয় রংপুর বিভাগে। খুলনা ও রাজশাহী বিভাগেও হয় ভুট্টা আবাদ। 

দেশে ভুট্টার চাহিদা রয়েছে ৬৫ লাখ টন, আর উৎপাদন হচ্ছে ৫৪ লাখ টন। শিগগিরই লক্ষ্য অর্জন সম্ভব হবে বলে জানান গম ও ভুট্টা গবেষণা ইন্সটিটিউটের মহাপরিচালক। 

গম ও ভুট্টা গবেষণা ইন্সটিউটের ড. মোহাম্মদ ইছরাইল হোসেন বলেন, বছর বছরই বাড়ছে ভুট্টার উৎপাদন। আমরা এখন যাচ্ছি ভুট্টা শুধু পোলট্রি ফিড এবং ফিস ফিডের মধ্যে সীমাবদ্ধ না থেকে মানুষের খাবার হিসেবে কিভাবে আনা যায় সে লক্ষ্যেই গবেষণা চলছে।

এরই মধ্যে ভুট্টার নতুন জাতও উদ্ভাবন করা হয়েছে।

ড. ইছরাইল হোসেন আরও বলেন, আমরা ভুট্টার প্রায় ১৯টি নতুন জাত উদ্ভাবন করেছি। তার মধ্যে উল্লেখযোগ্য হলো হাইব্রিড ভুট্টা-৯ এবং হাইব্রিড ভুট্টা-১৬।

উৎপাদনে স্বয়ংসম্পূর্ণ হলে ভুট্টা থেকেও বৈদেশিক আয় আসবে বলেও আশাবাদী কৃষিবিভাগ।

গাজীপুর কথা
কৃষি বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর