ব্রেকিং:
করোনা আপডেট বাংলাদেশ ০৫/০৫/২০২১: করোনা আক্রান্ত হয়ে ২৪ ঘণ্টায় দেশে ৫০ জনের মৃত্যু এ নিয়ে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ১১ হাজার ৭৫৫ জন, নতুন ১ হাজার ৭৪২ জন সহ আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে ৭ লাখ ৬৭ হাজার ৩৩৮ জন। নতুন ৩ হাজার ৪৩৩জন সহ মোট সুস্থ ৬ লাখ ৯৮ হাজার ৪৬৫ জন । একদিনে ২০ হাজার ২৮৪ টি সহ মোট নমুনা পরীক্ষা ৫৫ লাখ ৬০ হাজার ৬৭৮ টি।
  • বৃহস্পতিবার   ০৬ মে ২০২১ ||

  • বৈশাখ ২৩ ১৪২৮

  • || ২৪ রমজান ১৪৪২

সর্বশেষ:
রাষ্ট্রায়ত্ত্ব বাণিজ্যিক সংস্থাগুলোকে নিজ খরচে চলতে হবে: প্রধানমন্ত্রী পূবাইলে যুবলীগের উদ্যোগে দরিদ্রদের মাঝে ইফতার বিতরণ শ্রীপুরে প্রধানমন্ত্রীর উপহার নগদ অর্থ বিতরণ দেশব্যাপী চলমান লকডাউন বা বিধিনিষেধ আগামী ১৬ মে পর্যন্ত বাড়ানো হয়েছে ভালুকায় মেয়র ও কাউন্সিলরদের সাথে মত বিনিময় করেন এমপি ধনু শ্রমজীবীদের পাশে দাঁড়াতে বিত্তবানদের প্রতি আহ্বান আওয়ামী লীগের ভালুকায় দুস্থদের মাঝে প্রধানমন্ত্রীর পক্ষ থেকে উপহার বিতরণ গাজীপুরের টঙ্গী প্রেসক্লাবের আগুন নিয়ন্ত্রণে এলপিজির দাম কমে এখন ৯০৬ টাকা গাজীপুর মহানগর যুবলীগের উদ্যোগে দরিদ্র মানুষের মধ্যে ইফতার বিতরণ

‘পদ্মা সেতু’ নির্মাণকারী স্কুলছাত্র পুরস্কার পেল ১০ হাজার টাকা

গাজীপুর কথা

প্রকাশিত: ১৯ এপ্রিল ২০২১  

স্কুল ছাত্র সোহাগ আহম্মদ। থাকে ঢাকার ধামরাইয়ে, পড়াশোনা করে দশম শ্রেণিতে। কিছুদিন আগে নিজের বাড়ির আঙিনায় তৈরি করে পদ্মা সেতুর আদলে একটি পদ্মা সেতু। সেতুটি তৈরর পর সংবাদ পত্রের মাধম্যে আলোচনায় আসে এই স্কুল ছাত্র। বাঁশ, মাটি, সিমেন্ট আর মোবাইল ফোনসেটে ব্যবহৃত ছোট ছোট বাতি আর সাদা কালো রঙ দিয়ে পদ্মা সেতুটি নির্মাণ করা হয়। সেতুটি নির্মাণ করতে সময় লাগে পাঁচ মাস।

ধামরাই উপজেলার সূতিপাড়া ইউনিয়নের সূতিপাড়া গ্রামের কৃষক সুলতান আলীর ছেলে সোহাগ আহম্মেদ। স্থানীয় ভালুম আতাউর রহমান খান স্কুল ও কলেজের দশম শ্রেণির ছাত্র সোহাগ।

জাজিরার পদ্মা সেতুর প্রথম স্প্যান বসানোর দিনই সোহাগের চিন্তা মাথায় আসে পদ্মা সেতুর আসতে একটি পদ্মা সেতু তৈরি করবে সে। ২০১৯ সালে মাটি ও বাঁশ দিয়ে পর পর দুটি সেতু নির্মাণ করে। তবে নির্মাণের কিছুদিন পরেই সেগুলো ভেঙে যায়। এতে তার মন খারাপ হলেও হাল ছাড়েনি। পরে ইন্টারনেটে পদ্মা সেতুর মূল নকশা দেখে। এরপর ২০২০ সালের ১ নভেম্বর নতুন করে নির্মাণ কাজ শুরু করে।

সোহাগ আমম্মদের প্রতিভা দেখতে ছুটে আসেন বেসরকারি উন্নয়ন সংস্থা এসডিআই’র প্রধান নির্বাহী পরিচালক সামসুল হক। পদ্মা সেতুর আদলে পদ্মা সেতু দেখে অভিভুত হন তিনি। সেই সাথে সোহাগ আহম্মদকে ১০ হাজার টাকা পুরস্কার প্রদানও করেন। 

সামসুল হক বলেন, পত্রিকায় স্কুল ছাত্র সোহাগ আহম্মদের পদ্মা সেতু বানানোর সংবাদ পড়ে সেতুটি দেখতে আগ্রহ জাগে। তাই সেতুটি দেখতে আসলাম। সত্যিকারের পদ্মা সেতুর আদলে সেতু বানিয়ে সে সকলকে তাক লাগিয়ে দেওয়ার মতই কাজ করেছে।’ এমন প্রতিভাবনদের প্রতিভা বিকাশে সব ধরনের সহযোগিতা করার আশ্বাস দেন তিনি। এছাড়াও ভবিষ্যতে যাতে সোহাগ আহম্মদ ভালো একজন প্রকৌশলী হতে পারে তার জন্য সকল প্রকার সহযোগিতার আশ্বাস দেন সামসুল হক।

গাজীপুর কথা
গাজীপুর কথা