ব্রেকিং:
করোনা আপডেট বাংলাদেশ ১৭/০৪/২০২১: করোনা আক্রান্ত হয়ে ২৪ ঘণ্টায় দেশে ১০১ জনের মৃত্যু এ নিয়ে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ১০ হাজার ২৮৩ জন, নতুন ৩ হাজার ৪৭৩ জন সহ আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে ৭ লাখ ১৫ হাজার ২৫২ জন। নতুন ৫ হাজার ৯০৭ জন সহ মোট সুস্থ ৬ লাখ ৮ হাজার ৮১৫ জন । একদিনে ১৬ হাজার ১৮৫টি সহ মোট নমুনা পরীক্ষা ৫১ লাখ ৫০ হাজার ৬৬৩ টি।
  • রোববার   ১৮ এপ্রিল ২০২১ ||

  • বৈশাখ ৪ ১৪২৮

  • || ০৬ রমজান ১৪৪২

সর্বশেষ:
মুজিবনগর দিবসে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা কিংবদন্তী অভিনেত্রী সারাহ বেগম কবরী আর নেই (ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন)। প্রধানমন্ত্রীর শোক প্রকাশ। ১৭ এপ্রিল মুজিব নগর দিবস, বাংলাদেশের স্বাধীনতা সংগ্রামের সুদীর্ঘ ইতিহাসের এক চির ভাস্বর অবিস্মরণীয় দিন দেশ গঠনে নিজ নিজ দায়িত্ব পালন করুন: রাষ্ট্রপতি মুজিবনগর দিবস উপলক্ষে ই-পোস্টার প্রকাশ প্রধানমন্ত্রীর ঈদ উপহার পাবে ৩৬ লাখ পরিবার ১৭ এপ্রিল থেকে প্রবাসীদের জন্য বিশেষ ফ্লাইট করোনা রোগীর সহায়তায় বিমান বাহিনীর জরুরি সেবা করোনায় ক্ষতিগ্রস্ত ৫০ লাখ দরিদ্র পরিবারকে ২৫০০ টাকা দেয়ার উদ্যোগ করোনামুক্ত হওয়ার ২৮ দিন পর টিকা নেওয়া যাবে

গাজীপুরে স্ত্রীকে হত্যার পর ৭ টুকরা করলো স্বামী

গাজীপুর কথা

প্রকাশিত: ৭ মার্চ ২০২১  

গাজীপুরে রেহানা বেগম নামের এক গৃহবধূর ৭ টুকরো লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। রবিবার দুপুরে গাজীপুর সদর উপজেলার মনিপুরে এলাকার তিনটি জায়গা থেকে লাশের খন্ডিত অংশ উদ্ধার করে। এ ঘটনায় নিহতের স্বামী জুয়েল আহমেদকে (২২) আটক করেছে পুলিশ। জুয়েল তার স্ত্রীকে হত্যার পর সাত টুকরা করার কথা পুলিশের কাছে স্বীকার করেছে। 

নিহত গৃহবধূ রেহানা বেগম সুনামগঞ্জ জেলার বিশ্বম্ভরপুর থানার পলাশ ইউনিয়নের ইসলামপুর গ্রামের আব্দুল মালেকের মেয়ে। 

আটক জুয়েল ও স্থানীয়দের বরাত দিয়ে জয়দেবপুর থানার ওসি মামুন আল রশিদ জানান, জুয়েলের বাড়ি সুনামগঞ্জ জেলার বিশ্বম্ভরপুর থানার পলাশ ইউনিয়নের কাচিরগাতি গ্রামে। তার পিতার নাম আব্দুল বাতেন। রেহানা ও জুয়েল তারা সম্পর্কে বিয়াই-বিয়াইন ছিল। প্রেমে জড়িয়ে দুই বছর আগে তারা পালিয়ে বিয়ে করেন। দুই মাস ধরে তারা গাজীপুরের মনিপুর এলাকায় জাকিরের বাড়িতে ভাড়া থাকেন। জুয়েল চাকরি ছেড়ে কাপড়ের ব্যবসা করতেন। রেহেনা আক্তার দেড় বছর আগে চাকরি করতেন নারায়ণগঞ্জের একটি গার্মেন্টে। সম্প্রতি স্বামী জুয়েলের কথায় গাজীপুর চলে আসেন। গত বৃহস্পতিবার সাংসারিক কলহের জেরে উভয়ের মাঝে ঝগড়া হয়। ঝগড়ার এক পর্যায়ে রেহানাকে মারধর করলে সে অজ্ঞান হয়ে পড়ে। পরে রেহানা মারা গেছে ভেবে লাশ গুম করার উদ্দেশ্যে স্ত্রীকে শয়নকক্ষে ছুরি দিয়ে জবাই করে এবং মৃতদেহ ৭টি খন্ড করে তিনটি ব্যাগে ভরে রাতের আঁধারে নিরাপদ স্থান মনে করে টুকরাগুলো বাড়ির পাশের একটি সেফটি ট্যাংকের উপরে ময়লার স্তুপে লুকিয়ে রাখে। 

ওসি আরো জানান, ময়লার স্তুপের পাশে একটি ব্যাগ দেখতে পেয়ে ও দুর্গন্ধ পেয়ে এলাকাবাসী পুলিশে খবর দেন। পরে জুয়েলের আচরণে পরিবর্তন দেখে সন্দেহ হলে এ ঘটনাও পুলিশকে জানান। পরে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে ব্যাগ খুলে ওই নারীর কাটা দুই হাত, দুই পা ও মাথা উদ্ধার করা করে। স্ত্রীকে হত্যার পর সাত টুকরা করার কথা জুয়েল পুলিশের কাছে স্বীকার করেছে বলে তিনি জানান। এছাড়া লাশের ময়না তদন্ত রিপোর্ট ও ঘটনার তদন্তের পর পুরো তথ্য জানা যাবে বলে তিনি জানান। এ ঘটনায় নিহতের ভাই বাদী হয়ে মামলার প্রস্তুতি নিচ্ছে।

এ ব্যাপারে হোতাপাড়া ফাঁড়ি ইনর্চাজ পুলিশ পরিদর্শক নাজমুল হুদা জানান, স্থানীয়রা ফোন দিলে আমরা ঘটনাস্থলে গিয়ে নিহতের স্বামীকে আটক করি এবং লাশের খন্ডিত অংশ উদ্ধার করে সেগুলি গাজীপুরের শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়। 

গাজীপুর কথা
গাজীপুর কথা