ব্রেকিং:
করোনা আপডেট বাংলাদেশ ২৮/১০/২০২০: করোনা আক্রান্ত হয়ে ২৪ ঘণ্টায় দেশে ২৩ জনের মৃত্যু এ নিয়ে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ৫৮৬১, নতুন ১৪৯৩ জনসহ আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে ৪০৩০৭৯ জন। নতুন ১৬১০ জনসহ মোট সুস্থ ৩১৯৭৩৩ জন। একদিনে ১৩৩৫৭ টি সহ মোট নমুনা পরীক্ষা ২২৯৬৩২১ টি।
  • বুধবার   ২৮ অক্টোবর ২০২০ ||

  • কার্তিক ১৩ ১৪২৭

  • || ১২ রবিউল আউয়াল ১৪৪২

সর্বশেষ:
বিল, হাওর-বাওর বাঁচিয়ে রাখার পরামর্শ প্রধানমন্ত্রীর ২৮ অক্টোবর, বীরশ্রেষ্ঠ সিপাহী হামিদুর রহমানের ৪৯তম শাহাদাতবার্ষিকী বৈশ্বিক চ্যালেঞ্জ মোকাবেলায় জাতিসংঘের জোরালো ভূমিকার আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর বাংলাদেশের ‘গ্লোব বায়োটেক’র তৈরি টিকা নিতে চায় নেপাল মুজিববর্ষ উপলক্ষে সংসদের বিশেষ অধিবেশন শুরু ৮ নভেম্বর বঙ্গবন্ধুর ৭ মার্চের সঠিক ভাষণ খুঁজতে কমিটি গঠন গ্লোব বায়োটেকের ভ্যাকসিন তালিকাভুক্ত করলো বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা মুজিবনগরকে দৃষ্টিনন্দন করতে ৫৪০ কোটি টাকার প্রকল্প গুরুদাসপুরে প্রধানমন্ত্রীর দেওয়া ঘর পেল অসহায় পরিবার খাদ্যশস্য উৎপাদনে বাংলাদেশ এখন বিশ্বে উদাহরণ দেশের সবচেয়ে বড় সৌর বিদ্যুৎ কেন্দ্রে উৎপাদন শিগগিরই কক্সবাজারের চেয়ে ১৮টি উন্নত সেবা ভাসানচরে মাথাপিছু জিডিপিতে ভারতকে ছাড়িয়েছে বাংলাদেশ পদ্মা সেতুর শেষ স্প্যানের ফিটিং সম্পন্ন বাংলাদেশ করোনার ৩ কোটি ভ্যাকসিন পাবে : স্বাস্থ্য সচিব বাংলাদেশ থেকে কৃষি শ্রমিক নেবে ইতালি গাজীপুরে পূজা উদযাপনের সব প্রস্তুতি সম্পন্ন কাপাসিয়ায় অসহায় ও দুস্থ মহিলাদের মাঝে চাল বিতরণ করা হবে গাজীপুরে ২৪ ঘন্টায় নতুন ৮ জন করোনা আক্রান্ত বাংলাদেশ উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয়ের ২৮তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালিত ভালুকায় হিন্দু ধর্মাবলম্বীদের মাঝে উপহার সামগ্রী বিতরন স্বেচ্ছাসেবক লীগ কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য হলেন কালীগঞ্জের পাপ্পু
৮০

গাজীপুরে প্রতিমা তৈরিতে ব্যস্ত সময় পার করছেন শিল্পীরা

গাজীপুর কথা

প্রকাশিত: ১৭ অক্টোবর ২০২০  

গাজীপুরের কালিয়াকৈরে শারদীয় দুর্গাপূজার প্রতিমা তৈরিতে ব্যস্ত সময় পার করছেন শিল্পীরা। তবে করোনা মহামারির কারণে এ বছর পূজার সংখ্যা কমেছে। হিন্দু ধর্মাবলম্বীদের সবচেয়ে বড় ধর্মীয় উৎসব শারদীয় দুর্গা পূজা।

পূজা কমিটি সূত্রে জানা গেছে, দুর্গাপূজার বাকি আর মাত্র কয়েক দিন। উপজেলায় এ বছর ৯৯টি মণ্ডপে দুর্গা পূজা অনুষ্ঠিত হচ্ছে। প্রতিমা তৈরি করার কাজে ব্যস্ত সময় পার করছেন প্রতিমা শিল্পীরা। পূজা উৎসবকে পরিপূর্ণ রূপ দিতে মন্দিরগুলোতে চলছে ব্যাপক সাজসজ্জার প্রস্তুতি। ইতোমধ্যে বেশির ভাগ মণ্ডপে প্রতিমার কাঠামো মাটির কাজ প্রায় শেষ। শুরু হয়েছে রং, তুলি ও সাজসজ্জার কাজও। 

নীলাকাশ, সাদা মেঘের ভেলা আর কাশফুলে জানান দেয় শরৎ বিরাজমান। জানান দেয় শারদীয় দুর্গোৎসবের আগমনী বার্তার। যদিও এবার দেবী দূর্গা আসছেন হেমন্তে। আর করোনা মহামারির কারণে এবার কমছে অনুষ্ঠানের আড়ম্ব ও মণ্ডপের সংখ্যা।
আগামী ২২ অক্টোবর ষষ্ঠী পূজা দিয়ে শারদীয় দুর্গাপূজার আনুষ্ঠানিকতা শুরু হবে। হিন্দু ধর্মের সবচেয়ে বড় ধর্মীয় উৎসব শারদীয় দুর্গাপূজা। উপজেলার স্থানীয় শিল্পী ছাড়াও বিভিন্ন স্থান থেকে আগত শিল্পীরা এখানে এসে রং তুলির কাজ করছেন। প্রতিটি পূজা মণ্ডপের জন্য তৈরি হচ্ছে দুর্গা, সরস্বতী, লক্ষ্মী, গনেশ, কার্তিক, অসুর, সিংহ, হাঁস, পেঁচা, সর্পসহ বিভিন্ন প্রতিমা। করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাবের কারণে পূজার সংখ্যা কমার পাশাপাশি কমেছে প্রতিমার মজুরিও।
 
দশর্নাথী সঞ্জয় সাহা বলেন, এবার করোনার কারণে আনন্দ উৎসব তেমন করতে পারব না। কোনো রকম প্রতিমূর্তী তৈরি করা হয়েছে।
কালিয়াকৈর উপজেলার পূজা উদযাপন কমিটির সভাপতি অজিত কুমার সাহা জানান, এবার করোনার কারণে পূজা মণ্ডপগুলোতে গাজীপুর জেলা পরিষদের পক্ষ থেকে চাব্বিশটা বিধিমালা তৈরি করে দিয়েছে। সেই নিয়ম অনুযায়ী এবার কালিয়াকৈর পূজা পালন করা হবে।

কালিয়াকৈর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মনোয়ার হোসেন চৌধুরী জানান, হিন্দু ধর্মাবলম্বীদের সবচেয়ে বড় ধর্মীয় উৎসব শারদীয় দুর্গাপূজা। তাদের এ ধর্মীয় উৎসব সম্পন্ন করার লক্ষ্যে আইনশৃঙ্খলা রক্ষা বাহিনী সজাগ দৃষ্টি রাখবে। 

গাজীপুর কথা
নগর জুড়ে বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর