ব্রেকিং:
করোনা আপডেট বাংলাদেশ ০৪/আগস্ট/২০২০ : করোনা আক্রান্ত হয়ে ২৪ ঘণ্টায় দেশে ৫০ জনের মৃত্যু এ নিয়ে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ৩২৩৪, নতুন ১৯১৮ জনসহ আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে ২৪৪০২০, নতুন ১৯৫৫ জনসহ মোট সুস্থ ১৩৯৮৬০ জন, একদিনে ৭৭১২ টি সহ মোট নমুনা পরীক্ষা ১২০১২৫৬ টি।
  • বুধবার   ০৫ আগস্ট ২০২০ ||

  • শ্রাবণ ২১ ১৪২৭

  • || ১৬ জ্বিলহজ্জ ১৪৪১

সর্বশেষ:
বঙ্গবন্ধুর জ্যেষ্ঠ পুত্র, মুক্তিযুদ্ধের অন্যতম সংগঠক এবং ক্রীড়া ও সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব শহীদ শেখ কামালের ৭১তম জন্মবার্ষিকী আজ সিনহা রাশেদের মাকে প্রধানমন্ত্রীর ফোন, বিচারের আশ্বাস মানুষ যেন উন্নত জীবন পায় সেটাই সরকারের লক্ষ্য: প্রধানমন্ত্রী আমরা সফলতার সঙ্গে করোনা মোকাবিলা করেছি: স্বাস্থ্যমন্ত্রী গাজীপুরে গত ২৪ ঘন্টায় ৮ জনের করোনা শনাক্ত জুলাইয়ে রপ্তানি আয় ৩৯২ কোটি ডলার অতীতের রেকর্ড ভেঙে এক মাসে সর্বোচ্চ রেমিট্যান্স এলো দেশে ৬৫ হাজার প্রাথমিক বিদ্যালয়ে শুরু হচ্ছে মিড-ডে মিল কার্যক্রম ঈদের ছুটি শেষে ঢাকায় ফিরছে মানুষ গাজীপুরের কালিয়াকৈরে বন্যার্তদের মাঝে ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ গাজীপুরে কমতে শুরু করেছে বন্যার পানি
২৩১

কাল সন্ধ্যায় বিরল দৃশ্য দেখা যাবে আকাশে

গাজীপুর কথা

প্রকাশিত: ১৩ জুলাই ২০২০  

কয়েকদিন আগেই গিয়েছে বলয়গ্রাস সূর্যগ্রহণ। স্বচক্ষে তা দেখেছেও মানুষ। এবার হাজির ধূমকেতু। আগামীকাল বুধবার দেখা যাবে এই ধূমকেতুকে। মহাকাশে সৃষ্টি হবে এক অভূতপূর্ব দৃশ্য। এই বিরল দৃশ্যের সাক্ষী হতে চলেছে পৃথিবীর মানুষ।

তীব্র গতিবেগে পৃথিবীর দিকে ছুটে আসবে ধূমকেতু। তার আলোর ছটার পরিধি কয়েক কিলোমিটার দীর্ঘ হবে। আর সেই দৃশ্যই দেখা যাবে খালি চোখে। ১৪ জুলাইয়ের পর থেকে প্রতিদিন ২০ মিনিটের জন্য সূর্যাস্তের পর দেখা যাবে এই বিরল ধূমকেতু। জুলাই মাসের ১৪ তারিখ থেকে ২০ দিন পর্যন্ত দেখা যাবে এই ধূমকেতুকে।

সি/২০২০ এফ৩ বা নিওওয়াস নামে এই ধূমকেতুটি আবিষ্কার হয়েছে মার্চ মাসে। এটি এবার যাওয়ার পর আবার ফিরবে ৬ হাজার ৮০০ বছর পর। ১৫ জুলাইয়ের পর ধূমকেতুটি ধীরে ধীরে সরবে পশ্চিম আকাশে। ফলে সূর্যাস্তের পর উত্তর-পশ্চিম আকাশে খালি চোখে বা বায়নোকোলার দিয়ে দেখা যাবে একে।

তবে এই ধূমকেতু শীতল। এখন তার লক্ষ্য পৃথিবী। দুরন্ত গতিতে সে পৃথিবীর দিকে এগিয়ে আসছে। বিজ্ঞানীরা বলছেন, সাধারণত এ ধরনের দৃশ্য দেখার জন্য দূরবীক্ষণ যন্ত্রের প্রয়োজন হয়। কিন্তু এক্ষেত্রে একেবারে খালি চোখেই দেখা যাবে সেই দৃশ্য। তবে টেলিস্কোপ দিয়ে আরও স্পষ্টভাবে দেখা যাবে দৃশ্যটি।

আগামীকাল মহাকাশে স্পষ্ট হয়ে জ্বলজ্বল করে উঠবে ধূমকেতু। এরপর একটু একটু করে এগিয়ে আসবে। ২২ থেকে ২৩ জুলাই আরো রূপসী হয়ে উঠবে। এই সময় ধূমকেতুর ঔজ্জ্বল্য সব থেকে বেশি থাকবে বলে জানানো হয়েছে।

তবে এই ধূমকেতুর বংশ পরিচয় জানেন না বিজ্ঞানীরা। সে সূর্যের মায়া ত্যাগ করে এখন পৃথিবীর প্রদক্ষিণে ব্যস্ত হতে যাচ্ছে। তবে এই ধূমকেতুর সৌরমণ্ডল ঘুরে দেখার বিষয়টি মার্চ মাসেই টের পেয়েছিলেন বিজ্ঞানীরা।

গাজীপুর কথা
বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর