ব্রেকিং:
করোনা আপডেট বাংলাদেশ ২৮/১০/২০২০: করোনা আক্রান্ত হয়ে ২৪ ঘণ্টায় দেশে ২৩ জনের মৃত্যু এ নিয়ে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ৫৮৬১, নতুন ১৪৯৩ জনসহ আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে ৪০৩০৭৯ জন। নতুন ১৬১০ জনসহ মোট সুস্থ ৩১৯৭৩৩ জন। একদিনে ১৩৩৫৭ টি সহ মোট নমুনা পরীক্ষা ২২৯৬৩২১ টি।
  • বুধবার   ২৮ অক্টোবর ২০২০ ||

  • কার্তিক ১৩ ১৪২৭

  • || ১২ রবিউল আউয়াল ১৪৪২

সর্বশেষ:
বিল, হাওর-বাওর বাঁচিয়ে রাখার পরামর্শ প্রধানমন্ত্রীর ২৮ অক্টোবর, বীরশ্রেষ্ঠ সিপাহী হামিদুর রহমানের ৪৯তম শাহাদাতবার্ষিকী বৈশ্বিক চ্যালেঞ্জ মোকাবেলায় জাতিসংঘের জোরালো ভূমিকার আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর বাংলাদেশের ‘গ্লোব বায়োটেক’র তৈরি টিকা নিতে চায় নেপাল মুজিববর্ষ উপলক্ষে সংসদের বিশেষ অধিবেশন শুরু ৮ নভেম্বর বঙ্গবন্ধুর ৭ মার্চের সঠিক ভাষণ খুঁজতে কমিটি গঠন গ্লোব বায়োটেকের ভ্যাকসিন তালিকাভুক্ত করলো বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা মুজিবনগরকে দৃষ্টিনন্দন করতে ৫৪০ কোটি টাকার প্রকল্প গুরুদাসপুরে প্রধানমন্ত্রীর দেওয়া ঘর পেল অসহায় পরিবার খাদ্যশস্য উৎপাদনে বাংলাদেশ এখন বিশ্বে উদাহরণ দেশের সবচেয়ে বড় সৌর বিদ্যুৎ কেন্দ্রে উৎপাদন শিগগিরই কক্সবাজারের চেয়ে ১৮টি উন্নত সেবা ভাসানচরে মাথাপিছু জিডিপিতে ভারতকে ছাড়িয়েছে বাংলাদেশ পদ্মা সেতুর শেষ স্প্যানের ফিটিং সম্পন্ন বাংলাদেশ করোনার ৩ কোটি ভ্যাকসিন পাবে : স্বাস্থ্য সচিব বাংলাদেশ থেকে কৃষি শ্রমিক নেবে ইতালি গাজীপুরে পূজা উদযাপনের সব প্রস্তুতি সম্পন্ন কাপাসিয়ায় অসহায় ও দুস্থ মহিলাদের মাঝে চাল বিতরণ করা হবে গাজীপুরে ২৪ ঘন্টায় নতুন ৮ জন করোনা আক্রান্ত বাংলাদেশ উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয়ের ২৮তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালিত ভালুকায় হিন্দু ধর্মাবলম্বীদের মাঝে উপহার সামগ্রী বিতরন স্বেচ্ছাসেবক লীগ কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য হলেন কালীগঞ্জের পাপ্পু
৬০

আন্তর্জাতিক শিশু নোবেল শান্তি পুরস্কারের তালিকায় বাংলাদেশের সাগর

গাজীপুর কথা

প্রকাশিত: ১৭ অক্টোবর ২০২০  

আন্তর্জাতিক শিশু নোবেল শান্তি পুরস্কার-২০ এর চূড়ান্ত তালিকায় স্থান পাওয়া ৪২টি দেশের ৪২ জন শিশুর মধ্যে একমাত্র বাংলাদেশি শিশু এম. এ. মুনঈম সাগর। মুনঈম সাগর উপকূলীয় বরগুনা পৌরসভার কলেজ রোডের মুসলিম পাড়া এলাকার বাসিন্দা। তার বাবা শাহ্ মো. হুমায়ুন সগির এবং মা মনিরা বেগম উভয়ই সরকারি চাকরিজীবী।

মুনঈম বরগুনা জিলা স্কুল থেকে বিজ্ঞান বিভাগে এসএসসি পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হয়ে বর্তমানে ঢাকা রেসিডেনসিয়াল মডেল কলেজের বিজ্ঞান বিভাগের দ্বাদশ শ্রেণিতে অধ্যায়নরত আছেন।

তিনি জাতীয় সেরা সমাজকর্মী স্টুডেন্ট অ্যাওয়ার্ড এবং জাতীয় সেরা স্কাউট মোটিভেটর অ্যাওয়ার্ডসহ ইতিমধ্যে ১৫টি জাতীয় পুরস্কার পেয়েছেন। এছাড়াও জাপান সরকারের অধীনে পেয়েছেন একটি আন্তর্জাতিক পুরস্কার।

সমাজসেবা ও শিশু অধিকার নিশ্চিত করার যে আন্দোলন বিশ্বব্যাপী মুনঈম সাগর অব্যাহত রেখেছেন, তার সূচনা ঘটে নিজ পারিবারিক সমাজসেবামূলক প্রতিষ্ঠান বাংলাদেশ প্রতিবন্ধী উন্নয়ন সংস্থার (বিডিডিটি) মাধ্যমে। যার প্রতিষ্ঠাতা ও সিইও মুনঈম সাগরের নানা মো. মনিরুজ্জামান খান। পরবর্তীতে শিশু অধিকার নিশ্চিত করার লক্ষ্যে দেশব্যাপী বিভিন্ন কার্যক্রম পরিচালনার জন্য মুনঈম সাগর টাইগার্স অব বাংলাদেশ (টিওবি) প্রতিষ্ঠা করেন।

মুনঈম সাগরের বাবা শাহ্ মো. হুমায়ুন সগির বলেন, ছোটবেলা থেকেই মুন্ঈম মানুষের প্রতি বিনয়ী চিত্তে ভালোবাসা ও দরদ নিয়ে বড় হয়েছে। অসহায় শিশুদের দেখলে তাদের সাহায্য সহযোগিতার জন্য এগিয়ে যেত। শিশু অধিকার নিয়ে এখনো কাজ করে। তারই স্বীকৃতিস্বরূপ আন্তর্জাতিক শিশু শান্তি পুরস্কারের জন্য মনোনীত হয়েছে আমার ছেলে। সবাই দোয়া করবেন, মুনঈম যেন বিজয়ী হতে পারে।

প্রসঙ্গত, সামাজিক উন্নয়ন, সমাজের পরিবর্তন, শিশু অধিকার, দারিদ্রতা দূরীকরণ এবং ক্ষুধা নিবারণসহ বিভিন্ন ক্ষেত্রে গুরুত্বপূর্ণ অবদান রাখার জন্য এ পুরস্কার প্রদান করবে নেদারল্যান্ডের কিডস্ রাইটস্ ফাউন্ডেশন নামের একটি সংস্থা। প্রাথমিকভাবে ১৮৬টি দেশের পাঁচ শতাধিক শিশু কিশোরকে এ পুরস্কারের জন্য মনোনীত করা হয়। এরপর পর্যায়ক্রমে বাছাই করে মনোনীত করা হয় ৮৬ জনকে।

সেখান থেকে চূড়ান্ত পর্যায়ে পুরস্কারের জন্য মনোনীত করা হয়েছে মুনঈমসহ মোট ৪২ জনকে। এখান থেকে একক কিংবা যৌথভাবে আগামী ১৩ নভেম্বর ঘোষণা করা হবে আন্তর্জাতিক শিশু নোবেল শান্তি পুরস্কার। ইতিমধ্যে এ পুরস্কার ঘোষণার জন্য অনলাইনে ভোটগ্রহণ শুরু করেছে সংস্থাটি। তাই উপকূলের মুনঈম সাগরকে বিজয়ী করতে হলে দরকার একটি মূল্যবান ভোট।

এই হ্যাশট্যাক #ChildrensPeacePrize ও লিংক https://kidsrights.org/persons/munim সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ব্যবহার করলে একটি করে ভোট যোগ হবে।

মুনঈম সাগর উপকূলবাসীর উদ্দেশ্যে বলেন, পরিশ্রম আর সবার সহযোগিতা এবং ভালবাসায় এতদূর এসেছি আমি। আপনাদের প্রার্থনা আর একটি করে ভোট এখন আমাকে চূড়ান্তভাবে মনোনীত করতে পারে। তাই একটি পোস্টের মাধ্যমে আমাকে ভোট দেয়ার জন্য সবাইকে অনুরোধ করছি।

গাজীপুর কথা
জাতীয় বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর